ভাগ্য খুলছে দেশের ৫২০০এসিটি সেকায়েপ শিক্ষকদের

ভাগ্য খুলছে দেশের ৫২০০এসিটি সেকায়েপ শিক্ষকদের

- in সারাদেশ
8361
অনলাইন ডেস্ক :
শিক্ষা মন্ত্রণালয় কর্তৃক পরিচালিত সেকেন্ডারি এডুকেশন কোয়ালিটি এক্সেস এনহান্সমেন্ট প্রোজেক্ট (সেকায়েপ) এর অধীনে ২০১৫ থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত ইংরেজি, গনিত ও বিজ্ঞান বিষয়ে সারাদেশব্যপী প্রায় ৫২০০ অতিরিক্ত শ্রেণী শিক্ষক (এসিটি) নিয়োগ করে সরকার। এই প্রকল্পের মেয়াদ গত ডিসেম্বর-২০১৭ সালে শেষ হলেও পাঠাভ্যাস কর্মসূচি সহ অন্যান্য কম্পোনেন্ট বহাল রাখে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। কিন্তু এসিটি শিক্ষকদের ব্যাপারে এখনো কোন সিদ্ধান্ত লিখিতভাবে মন্ত্রণালয় প্রদান করে নাই।
 এদিকে চলতি সংসদ অধিবেশনের পর গত ১২ এপ্রিল বৃহঃ বার শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের স্থায়ী কমিটিরর নিয়মিত বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত বৈঠকে অতিরিক্ত শ্রেণী শিক্ষকদের বহাল করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয় বলে জানিয়েছেন শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের স্থায়ী কমিটিরর সদস্য অধ্যাপক গোলাম মোস্তফা, এমপি। তিনি বলেন, এমাসেই এসিটি শিক্ষকদের একটি বৃহৎ প্রোগ্রামে সরাসরি অন্তর্ভুক্ত করার ঘোষণা দেয়া হবে। এসময় তিনি সকল এসিটিদেরকে তাদের স্ব-স্ব স্কুল-মাদরাসায় কার্যক্রম অব্যাহত রাখার নির্দেশ প্রদান করেন।এদিকে ঘটনার সত্যতা যাচাইয়ের লক্ষ্যে বৈশাখের দ্বিতীয় দিনে ‘বাংলাদেশ এসিটি এসোসিয়েশন’ নীলফামারী ও দিনাজপুর জেলার নেতৃবৃন্দ অধ্যাপক গোলাম মোস্তফা, এমপির সাথে সৌজন্য সাক্ষাত ও বৈশাখী শুভেচ্ছা বিনিময় করেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন সংগঠনটির নীলফামারী জেলা শাখার সহ-সভাপতি লুবনা ইয়াসমিন, সাধারন সম্পাদক মোকছেদুর রহমান সাগর, প্রচার সম্পাদক মিসবাহ-উল হক। এছাড়াও আরও মতবিনিময় করেন, মামুনুর রশিদ মামুন (দিনাজপুর) সাদেকুর, লাকি বানু, মিজানুর, রোকন, বিমল শর্মা, কর্ন কুমার রায় সহ আরও অনেকে।