তাড়াশে দুই যুবলীগ নেতা কর্তৃক কিশোরী ধর্ষনের আলামত মিলেছে

তাড়াশে দুই যুবলীগ নেতা কর্তৃক কিশোরী ধর্ষনের আলামত মিলেছে

শামিউল হক শামীম, চলনবিল প্রতিনিধিঃ
সিরাজগঞ্জের তাড়াশে দুই যুবলীগ নেতা কর্তৃক এক কিশোরী কে ধর্ষনের মেডিকেল রির্পোটে আলামত মিলেছে । বিষয়টি মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা তাড়াশ থানার এস আই সাচ্চু বিশ্বাস বৃহস্পতিবার নিশ্চিত করেছেন । তিনি জানান,মেডিকেল রির্পোটে ওই কিশোরিকে ধর্ষনের সু-ষ্পট আলামত পাওয়ার বিষয়টি উল্লেখ করা হয়েছে। যা তিনি গত বুধবার হাতে পেয়েছেন। এদিকে মামলার তদন্তকারী কর্মকতা আরো জানান,খুব শীঘ্রই মামলাটি তদন্ত শেষ করে অভিযোগ পত্র দাখিল করা হবে। উল্লেখ্য,গত ২২ আগষ্ট মঙ্গলবার বিকালে নাটোর জেলার গুরুদাসপুর উপজেলার রানীগ্রামের এক কিশোরী (১৩) তাড়াশের মান্নাননগর গ্রামে দুলাভাই সুরুজ আলীর বাড়িতে বেড়াতে আসে । কিশোরী তার ছোট ভাইকে নিয়ে মান্নাননগর না নেমে ভুল করে মহিষলুটি এলাকায় গাড়ী থেকে নেমে ঘোরাফেরা করছিল । এসময় ওই দুই যুবলীগ নেতা তাদের কে পথ দেখিয়ে দেওয়ার কথা বলে মহিষলুটি বিদ্যালয় এলাকায় নিয়ে গিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করেন।এ ঘটনার পর ধর্ষণের শিকার ওই কিশোরীর চিৎকারে স্থানীয় লোকজন ও টহল পুলিশের সদস্যরা ধর্ষিতাকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন। পরে ধর্ষিতা কিশোরী নওগাঁ ইউনিয়ন যুবলীগের ৬নং ওয়ার্ড সহ-সভাপতি ও উপজেলার নওগাঁ ইউনিয়নের সাকুয়াদিঘী গ্রামের আবু তালেবের ছেলে আনিছুর রহমান (৩২) ও ইউনিয়ন যুবলীগের তথ্য বিষয়ক সম্পাদক একই গ্রামের সাইদুর রহমানের ছেলে মহির উদ্দিন(৩০) অভিযুক্ত করে ২৩ আগষ্ট সকালে মামলা দায়ের করেন। ওই দিনই থানা পুলিশ দুই যুবলীগ নেতা কে গ্রেফতার করেন। পরে দল থেকে তাদের কে বহিস্কার করা হয়।