পাঁচ মিনিট খালি পায়ে ঘাসের উপর দিয়ে হাঁটার উপকারিতা

পাঁচ মিনিট খালি পায়ে ঘাসের উপর দিয়ে হাঁটার উপকারিতা

প্রতিদিনের আলো  স্বাস্থ্য ডেস্ক :ভ্রমণে বেরিয়ে ব্যায়াম করার সময় কিছুক্ষণ ঘাসের উপর দিয়ে হাঁটতে বা দৌড়ানোর চেষ্টা করুন। বিশেষত ঘাসের ওপর দিয়ে খালি পায়ে কিছুক্ষণ হেঁটে নিন। কারণ খালি পায়ে ঘাসের উপর দিয়ে হাঁটলে দেহের উপকার হয় এবং শরীর ও মন দুটোই ভালো থাকে। তাছাড়া ওজন কমাতে ও সুস্থ থাকতে হাঁটা সবচাইতে ভালো শরীরচর্চা। ঘাসের উপর হাঁটার সুফলগুলো জেনে নিন এক নজরে-

১. পা সুস্থ রাখে:খালি পায়ে হাঁটতে পারলে পায়ের জন্য খুব ভালো ব্যায়াম হয়। এরফলে পায়ে শক্তি বৃদ্ধি পায়, পেশী মজবুত হয়, পায়ের রগ ও লিগামেন্টস, পায়ের গোড়ালি এবং পায়ের পাতা শক্তি বৃদ্ধি পায়। খালি পায়ে ঘাসে হাঁটলে কোনো কোনো আঘাত নিরাময় হয়, হাঁটুর সমস্যা ভালো হয়, পিঠের সমস্যাও ভালো হয়ে যায়।

২. শরীরের ভারসাম্য রক্ষা পায়:জুতা পায়ে সবসময় হাঁটলে দেহের ভারসাম্য নষ্ট হয়। যদি খালি পায়ে হাঁটা হয় তবে পায়ের পেশি ভালোমতো কাজ করে এবং দেহের ভারসাম্য রক্ষা হয়।এটি দেহের অঙ্গ বিন্যাসকে সঠিক রাখতেও সাহায্য করে।

৩. অন্যান্য অঙ্গ পতঙ্গ ভালো রাখেঃবিশেষজ্ঞদের মতে, নিয়মিত খালি পায়ে হাঁটলে পায়ের পাতা, শিরা-উপশিরা, গোড়ালি ইত্যাদি অঙ্গের শক্তি বৃদ্ধি পায়। ক্রনিক পেশির ব্যথা এবং জয়েন্টে ব্যথা কমে। হাঁটুর ব্যথা কমাতেও সাহায্য করে খালি পায়ে হাঁটা।

৪. পেশির শক্তি বাড়ায়ঃনিয়মিত খালি পায়ে হাঁটলে পেশির শক্তি বৃদ্ধি পায়। প্রথমে হাঁটতে গিয়ে একটু অস্বস্তি অনুভব হলেও কয়েকদিন এভাবে হাঁটলে পেশিগুলো ভালোভাবে কাজ করে এবং পেশির শক্তি বাড়তে থাকে।

৫. মানসিক চাপ দূর হয়ঃঅনেকেই মনে করেন পৃথিবীর মাটি- যেখানে ঘাস, লতাগুল্ম ইত্যাদি থাকে সেগুলোর স্পর্শ যদি পায়ের পাতা পায় তাহলে মন চনমনে হয়। তবে আমরা জুতা পায়ে হেঁটে এই অনুভূতি থেকে নিজেদের বিছিন্ন করে ফেলি। খালি পায়ে হাঁটলে প্রকৃতির অফুরান প্রাণশক্তি আপনাকেও স্পর্শ করতে পারে এবং এতে আপনার মানসিক চাপ কিছুটা হলেও দূর হবে। তবে এসব উপকার পেতে  অনেকক্ষণ খালি পায়ে হাঁটার দরকার নেই, কেবল নিয়মিত পাঁচ মিনিট হাঁটলেই হবে।